রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

শিরোনাম

ঈদের দিন মসজিদের সামনে কুরআন পোড়াতে আদালতের অনুমতি!

বুধবার, জুন ২৮, ২০২৩

প্রিন্ট করুন

সিএন প্রতিবেদন: মুসলমানদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদের দিন পোড়ানো হবে পবিত্র কুরআন। আর এজন্য অনুমতি দিয়েছে স্বয়ং আদালত। শুনতে অনেকটা অবিশ্বাস্য হলেও এমনটা হয়েছে সুইডেনে।

সুইডেনের রাজধানী স্টকহোমের প্রধান মসজিদের সামনে ওই কুরআন পোড়ানোর ইভেন্ট অনুষ্ঠিত হবে।

সুইডেনে কুরআন পোড়ানোর ঘটনা আগেও ঘটেছিল। পরে এ ঘটনা নিয়ে বিশ্বজুড়ে তীব্র নিন্দার মুখে পড়ে দেশটি। তারপরও এবার মুসলিম ধর্মীয় বিশেষ এদিনটিতে কুরআন পোড়ানোর অনুমতি দিয়েছেন সুইডিশ আদালত।

জানা গেছে, কুরআন পোড়ানোর এ ধরনের অনুষ্ঠানের জন্য অতীতে ন্যাটোতে সুইডেনের যোগদানের বিষয়ে বিরোধিতা করেছিল তুরস্ক। তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান সুইডেনে এ ধরনের ঘটনার তীব্র নিন্দাও জানিয়েছিলেন। তারপরও এবার ঈদে কুরআন পোড়ানোর অনুষ্ঠানে সম্মতি দিয়েছে সুইডিশ কর্তৃপক্ষ।

এ ধরনের ঘটনায় সম্মতি দেওয়ার বিষয়ে সুইডিশ আদালত যুক্তি দিয়েছে, ‘কুরআন পোড়ানোর ফলে নিরাপত্তা ঝুঁকি এবং ফলাফলগুলো এমন প্রকৃতির নয় যে বর্তমান আইন একটি সাধারণ সমাবেশের অনুরোধ প্রত্যাখ্যান করতে পারে।’

আয়োজকদের উদ্দেশে আরও বলা হয়, ‘পুলিশ বাহিনীও তাই আপনাদের সমাবেশের আবেদনে অনুমতি দেবে।’

সুইডেনের অভিবাসনবিরোধী এবং মুসলিম বিদ্বেষী উগ্র ডানপন্থীরা প্রায়ই কুরআন পুড়িয়ে থাকে। ডেনিশ-সুইডিশ ডানপন্থী নেতা রাসমুস পলুদান তাঁর সমর্থকদের এ কাজে উৎসাহ দিতেন। যদিও এবারের কুরআন পোড়ানোর অনুষ্ঠানে পলুদান কোনো ভূমিকা রাখেননি। এবার কুরআন পোড়ানোর আয়োজক একজন ইরাকি শরণার্থী। তিনি কুরআন নিষিদ্ধ করার পক্ষে প্রচারণা চালাচ্ছেন।

সিএন/এমটি

আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন