রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

শিরোনাম

ওয়াশিংটন ডিসিতে বিক্ষোভ/১০০ ফুট দীর্ঘ কাগজে নিহত ফিলিস্তিনিদের নাম

সোমবার, নভেম্বর ৬, ২০২৩

প্রিন্ট করুন

ওয়াশিংটন, যুক্তরাষ্ট্র: ৩০ মিটার তথা ১০০ ফুট দীর্ঘ কাগজ। তাতে একে একে লেখা হয়েছে নিহত ফিলিস্তিনিদের নাম, যারা গেল এক মাসে গাজায় ইসরাইলের হামলায় নিহত হয়েছেন। দীর্ঘ সেই কাগজ নিয়ে শনিবার (৪ নভেম্বর) যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ডিসিতে হোয়াইট হাউসের সামনে জড়ো হন বিক্ষোভকারীরা।

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় রীতিমত গণহত্যা চালাচ্ছে ইসরাইল। পৃথিবীর কোটি কোটি মানুষের আকুতি ও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের আবেদনেও কর্ণপাত করছেন না জায়নবাদী ইসরাইলের নেতারা। নির্বিচার বিমান হামলা চালিয়ে গেল এক মাসে তারা নয় হাজার ৭৭০ ফিলিস্তিনিকে হত্যা করেছে, যাদের অর্ধেকই নারী-শিশু। এই হত্যাকাণ্ডে সব ধরনের সহযোগিতা দিয়ে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র।

গাজায় ইসরাইলের বর্বর হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে উঠেছে যুক্তরাষ্ট্র। শনিবার (৪ নভেম্বর) ওয়াশিংটন ডিসিতে হোয়াইট হাউসের সামনে স্মরণকালের সবচেয়ে বড় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

পর্যবেক্ষক ও আয়োজকরা বলছেন, ‘ওয়াশিংটন ডিসির এই বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন প্রায় তিন লাখ মার্কিনি, যা ওয়াশিংটনের ইতিহাসের অন্যতম বড় বিক্ষোভ সমাবেশ। দেশটিতে বসবাসরত ইহুদি কমিউনিটির লোকজনও বিক্ষোভে অংশ নেন।’

গাজায় চলমান ইসরাইলি নৃশংসতাকে গণহত্যা অভিহিত করে দ্রুত তা বন্ধ করার দাবি জানিয়েছেন তারা।

হোয়াইট হাউসের সামনে বিক্ষোভেই প্রদর্শন করা হয় ১০০ ফুট দীর্ঘ একটি কাগজ। যাতে কালো ও গোটা গোটা অক্ষরে ছাপা হয়েছে গাজায় নিহত ফিলিস্তিনিদের নাম। বিক্ষোভের বেশ কিছু ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। এসব ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, রাস্তায় একটি দীর্ঘ ছাপা কাগজ হাতে হাতে বহন করছেন বিক্ষোভকারীরা। ফিলিস্তিনি পতাকার পাশাপাশি বিভিন্ন প্রতিবাদ ও স্লোগান লেখা ব্যানার-প্ল্যাকার্ডও বহন করেন তারা।

এছাড়া, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের বিরুদ্ধে স্লোগান দেন বিক্ষোভকারীরা। ইসরাইলকে অস্ত্র দিয়ে সহায়তা না করার আহ্বান জানিয়ে যুদ্ধবিরতির দাবি জানান তারা।

ওয়াশিংটন ডিসি ছাড়াও বিক্ষোভ হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে। শনিবার (৪ নভেম্বর) ম্যানহাটনের রাস্তায় নেমে আসেন শত শত মানুষ। স্বাধীন ফিলিস্তিন আর ইসরাইল সন্ত্রাসী স্লোগানে মুখর হয় রাজপথ। বিক্ষোভকারীরা দ্রুত যুদ্ধবিরতির দাবি জানান।

সিএন/এমএ

আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন