শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪

শিরোনাম

প্রথম বারের মত টি-টোয়েন্টিতে মুখোমুখি হচ্ছে পাকিস্তান ও যুক্তরাষ্ট্র

বুধবার, জুন ৫, ২০২৪

প্রিন্ট করুন

ডালাস, যুক্তরাষ্ট্র: স্বাগতিক যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বৃহস্পতিবার (৬ জুন) টি-২০ বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করতে যাচ্ছে পাকিস্তান। প্রথম বারের মত টি-২০ ফরম্যাটে মুখোমুখি হবে পাকিস্তান ও যুক্তরাষ্ট্র। ইতিমধ্যে দুর্দান্ত জয় দিয়ে বিশ্বকাপে সূচনা করেছে স্বাগতিক যুক্তরাষ্ট্র। নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে শক্তিশালী পাকিস্তানকে চমকে দিতে চায় যুক্তরাষ্ট্র। ডালাসে ‘এ’ গ্রুপের ম্যাচে বাংলাদেশ সময় বৃহস্পতিবার (৬ জুন) রাত নয়টা ৩০ মিনিটে খেলতে নামবে পাকিস্তান-যুক্তরাষ্ট্র।

স্বাগতিক দেশ হিসেবে এবারের বিশ্বকাপে খেলতে নেমেই দারুন শুরু করেছে যুক্তরাষ্ট্র। কানাডার বিপক্ষে সাত উইকেটে জয় তুলে নেয় তারা। কানাডার করা পাঁচ উইকেটে ১৯৪ রানের লক্ষ্য ১৪ বল বাকী রেখেই স্পর্শ করে রেকর্ড জয়ের স্বাদ নেয় যুক্তরাষ্ট্র। দলের জয়ে বড় অবদান রাখেন অ্যারন জোন্স ও আন্দ্রিস গাউস। জোন্স ৪০ বলে চারটি চার ও দশটি ছক্কায় অপরাজিত ৯৪ ও গাউস সাতটি চার ও তিনটি ছক্কায় ৪৬ বলে ৬৫ রান করেন।

কানাডার বিপক্ষে দুর্দান্ত জয়ের পর পাকিস্তান ও ভারতকে হারানোর ঘোষনা দেন যুক্তরাষ্ট্রের অধিনায়ক মোনাঙ্ক প্যাটেল, ‘যেভাবে খেলেছি, সেভাবে বাকী ম্যাচগুলো খেলে যেতে চাই। পাকিস্তান বা ভারত, দুই দলের বিপক্ষেই নির্ভিক ক্রিকেট খেলব আমরা। জয়ের জন্য নিজেদের উজার করে দিব।’

নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে পাকিস্তানকে হারাতে বিশেষ কিছু পরিকল্পনা সাজিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। মাঠের লড়াইয়ে সেগুলো কাজে লাগাতে মরিয়া তারা। মোনাঙ্ক প্যাটেল বলেন, ‘কাল পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ নিয়ে আমাদের বেশ কিছু পরিকল্পনা আছে। পরিকল্পনাগুলো মাঠে বাস্তবায়নই করাই এখন মূল লক্ষ্য। জয়ের ধারা অব্যাহত রাখতেই মাঠে নামব আমরা। প্রতিপক্ষকে এক বিন্দু ছাড় দিতে রাজি না আমরা। নিজেদের সামর্থ্য অনুযায়ী খেলতে পারলে, জয়ের হাসি আমরাই হাসব।’

তবে, কাগজে-কলমে ফেবারিট ২০০৯ আসরের চ্যাম্পিয়ন পাকিস্তান এ বছর চারটি টি-২০ সিরিজ খেলেছে। এরমধ্যে দুইটিতে হার, একটি করে জয় ও ড্র করেছে তারা। বছরের শুরুতে নিউজিল্যান্ড সফরে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে ৪-১ ব্যবধানে হারে পাকিস্তার। ঐ সিরিজে হারের পর শাহিন শাহ আফ্রিদিকে সরিয়ে সাদা বলেল দুই ফরম্যাটে পুনরায় বাবর আজমের কাঁধে অধিনায়কত্বের ভার তুলে দেয় পাকিস্তান। এরপর বাবরের নেতৃত্বে ঘরের মাঠে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের সিরিজ ২-২ সমতায় শেষ করে পাকিস্তান। বিশ্বকাপের পূর্ব মুর্হূতে প্রস্তুতি হিসেবে আয়ারল্যান্ড ও ইংল্যান্ডে সফর করে পাকিস্তান। আইরিশদের কাছে প্রথম ম্যাচ হারলেও, শেষ পর্যন্ত ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জিতে নেয় তারা। কিন্তু, ইংল্যান্ডের মাটিতে চার ম্যাচের সিরিজ ২-০ ব্যবধানে হেরে যায় বাবরের দল।
বিশ্বকাপের পূর্বে আয়ারল্যান্ড ও ইংল্যান্ড সিরিজ থাকায় কোন অফিসিয়াল প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেনি পাকিস্তান। তাই, সর্বশেষ দুই সিরিজে খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করতে যাচ্ছে তারা।

যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে ম্যাচ নিয়ে পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর বলেন, ‘আমরা জয় দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করতে চাই। প্রতিপক্ষ যুক্তরাষ্ট্র ভাল ছন্দে আছে। ঘরের মাঠে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ জয়ের পর, বিশ্বকাপেও ভাল শুরু করেছে। নিজেদের কন্ডিশনের সুবিধা ভালভাবে কাজে লাগিয়েছে তারা। যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে জয় পেতে হলে আমাদের সেরা ক্রিকেট খেলতে হবে।’

যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে খেলতে নামার পূর্বে দুঃসংবাদ শুনতে হয়েছে পাকিস্তানকে। সাইড স্ট্রেইন ইনজুরির কারণে এ ম্যাচে খেলতে পারবেন না অলরাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিম। ব্যাপারটি নিশ্চিত করেছেন বাবর, ‘সাইড স্ট্রেইন ইনজুরির কারণে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের প্রথম ম্যাচে থেলতে পারবেন না ইমাদ। আমরা আশা করছি, দ্বিতীয় ম্যাচ থেকেই ইমাদকে পাওয়া যাবে।’

পাকিস্তান দল: বাবর আজম (অধিনায়ক), মোহাম্মদ রিজওয়ান, সাইম আইয়ুব, ফখর জামান, উসমান খান, আজম খান, ইফতিখার আহমেদ, ইমাদ ওয়াসিম, শাদাব খান, মোহাম্মদ আমির, শাহিন শাহ আফ্রিদি, নাসিম শাহ, আব্বাস আফ্রিদি, হারিস রউফ ও আবরার আহমেদ।

যুক্তরাষ্ট্র দল: মোনাঙ্ক প্যাটেল (অধিনায়ক), অ্যারন জোন্স, এন্ড্রিস গোস, কোরি অ্যান্ডারসন, আলী খান, হারমিত সিং, জেসি সিং, মিলিন্ড কুমার, নিসর্গ প্যাটেল, নীতিশ কুমার, নসথুশ কেনজিগে, সৌরভ নেত্রভালকার, শেডলি ভ্যান, স্টিভেন টেইলর ও শায়ান জাহাঙ্গীর।

সিএন/আলী

আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন