রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪

শিরোনাম

নিউইয়র্কে অবৈধ বন্দুক বহন করলেই আটক: ক্রিসেন্ট সেওলে

শুক্রবার, জুন ২৪, ২০২২

প্রিন্ট করুন

নিজস্ব প্রতিবেদক: নিউইয়র্কের পুলিশ কমিশনার ক্রিসেন্ট সেওলে বলেছেন, ‘আপনি বাসায় বন্দুক রাখার অনুমতি নিয়ে কোনোমতে তা বাইরে বহন করতে পারবেন না। যদি অনুমোদনহীন কোন বন্দুক কারো কাছে পাওয়া যায় তবে তাকে আটক করা হবে।’

বৃহস্পতিবার (২৩ জুন) যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্ট আমেরিকানদের বন্দুক বহনের অধিকারের পক্ষে রায় দেয়ার পর ম্যানহাটনে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন সেওলে।

তিনি বলেন, ‘বন্দুক হামলায় আমাদের শহরের জনগণ অতিষ্ঠ। আমাদের এখানে যে নিয়ম আছে সে নিয়মে কেউ অনুমোদনহীন বন্দুক বহন করতে পারবে না।’

নিউইয়র্ক সিটি পুলিশ ডিপার্টমেন্ট অনুসারে প্রায় ১৬ হাজার নিউইয়র্কবাসীর কাছে এখন বন্দুক বহনের পারমিট রয়েছে। যা তাদের শহরের বাড়িতে হ্যান্ডগান রাখার অনুমতি দেয়। এছাড়া ৭০০ ব্যবসায়ীর কাছে কর্মক্ষেত্রে হ্যান্ডগান রাখার অনুমতি রয়েছে। এইদিকে ৩৫’শ চাকুরিজীবী ও ২৪’শ নিরাপত্তারক্ষীর বন্দুক বহনের অনুমতি রয়েছে নিউইয়র্কে।

তবে এবার যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যে প্রকাশ্যে লাইসেন্সপ্রাপ্ত আগ্নেয়াস্ত্র বহনের অনুমতি দিয়েছেন দেশটির সুপ্রিমকোর্ট। তবে স্টেট আগ্নেয়াস্ত্র বহনে নিজের মতো করে কিছু বিধিবিধান রাখতে পারবে বলে জানিয়েছেন সুপ্রিমকোর্ট।

ক্রিসেন্ট সেওলে ছাড়াও সুপ্রিমকোর্টের এই রায়েে বিরোধীতা করেছেন নিউইয়র্ক প্রশাসনের কর্তাব্যক্তিরা।

সুপ্রিমকোর্ট নিউইয়র্কে প্রকাশ্যে লাইসেন্স করা আগ্নেয়াস্ত্র বহনের অনুমতি দেওয়ার সিদ্ধান্তকে বেপরোয়া ও নিন্দনীয় বলে মন্তব্য করেছেন ডেমোক্র্যাট দল থেকে নির্বাচিত গভর্নর ক্যাথি হোকুল।

তিনি বলেন, ‘বন্দুক হামলায় নিহতদের পরিবারের সদস্যদের কষ্ট ভোলার নয়। নিউইয়র্কে প্রকাশ্যে আগ্নেয়াস্ত্র বহনের সুযোগ থাকার অর্থ হলো হঠাৎ করে যে কেউ সাবওয়ে, স্কুল কিংবা দোকানে ঢুকে পড়তে পারে, যার কারণে নিউইয়র্কারদের জীবন ঝুঁকির মুখ পড়বে।’

অন্যদিকে নিউইয়র্ক সিটি মেয়র এরিক অ্যাডামস বলেছেন, ‘নিউইয়র্ক সিটিতে বন্দুক বহনের বিষয়ে যে নিয়ম রয়েছে, সুপ্রিমকোর্টের রুলিংয়ের কারণে তাতে কোনো পরিবর্তন হবে না।’

তিনি বলেন, ‘সুপ্রিমকোর্টের এই সিদ্ধান্তে বন্দুক হামলার ঝুঁকি থেকে সিটি ও স্টেটের বাসিন্দারা আরও বেশি অনিরাপদ হলো। নিউইয়র্কসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ভয়াবহ বন্দুক সহিংসতার বিষয়টিকে উপেক্ষা করা হয়েছে। বর্তমান পরিস্থিতিকে আমলে না নেওয়ায় মানুষের ভবিষ্যৎ ঝুঁকিতে পড়ল বলে মনে করেন মেয়র এরিক অ্যাডামস।’

আইআই/সিএন

আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন